ডোমারের ১০ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হলেন যারা

 প্রকাশ: ০৬ জানুয়ারী ২০২২, ০৬:১৭ অপরাহ্ন   |   রাজনীতি




নুরল আমিন রংপুর ব্যুরোঃ





পঞ্চম ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে নীলফামারীর ডোমার উপজেলার ১০ ইউনিয়নে ভোটগ্রহণ শেষে বেসরকারিভাবে ফলাফল ঘোষণা করা হয়েছে। এতে চেয়ারম্যান পদে স্বতন্ত্র ৭ প্রার্থী ও আওয়ামী লীগের নৌকার ৩ প্রার্থীর জয় হয়েছে।


বুধবার (৫ই জানুয়ারী) রাতে ডোমার উপজেলা পরিষদ হলরুমে নির্বাচনের ফলাফল ঘোষণা করেন যথাক্রমে– উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা আব্দুর রহিম, উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মো. আনিছুজ্জামান, উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা. মোহাম্মদ মোজাম্মেল হক, উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা মো. আমির হোসেন, উপজেলা পল্লী উন্নয়ন কর্মকর্তা রাকিবুল আহমেদ চৌধুরী। 


উপজেলার ১নং ভোগডাবুরী ইউনিয়নে ৬ হাজার ৬৯৭ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন বিএনপি সমর্থিত স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. রেয়াজুল ইসলাম কালু (আনারস)। তার নিকটতম প্রার্থী চশমা প্রতিকের আবু তাহের পেয়েছেন ৫ হাজার ১৪৮ ভোট। এছাড়া নৌকার চেয়ারম্যান প্রার্থী মো. হাফিজুর রহমান বকুল ৫৪২ ভোট পেয়েছেন।


২নং কেতকীবাড়ি ইউনিয়নে ৩ হাজার ৪৬০ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী রশিদুল ইসলাম রোমান (অটোরিক্সা)। মাত্র ২৩ ভোটের ব্যবধানে ৩ হাজার ৪৩৭ ভোট পেয়ে তার নিকটতম প্রার্থী ছিলেন টেবিল ফ্যান প্রতিকের রাকিব হাসান প্রধান। এখানে মাত্র ১৬৮ ভোট পেয়েছেন নৌকার প্রার্থী মো. রবিউল ইসলাম স্বাধীন। 


৩নং গোমনাতি ইউনিয়নে ৪ হাজার ৮১৪ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী আহম্মেদ ফয়সাল শুভ (মটরসাইকেল)। সেখানে, নৌকার প্রার্থী আব্দুল হামিদ পেয়েছেন ২ হাজার ৯৬৯ ভোট।


৪নং জোড়াবাড়ি ইউনিয়নে ৩ হাজার ৪৩১ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী সাখাওয়াত হাবিব বাবু (অটোরিক্সা)। তার নিকটতম প্রার্থী নৌকার মো. এহতেশামুল হক পেয়েছেন ৩ হাজার ৩১৩ ভোট। আরেক হেভিওয়েট প্রার্থী আনারস প্রতিকের মনোয়ার হোসেন পেয়েছেন ৩ হাজার ২০৮ ভোট।


৫নং বামুনিয়া ইউনিয়নে ৩ হাজার ৮৫৩ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী মোমিনুর রহমান (মটরসাইকেল)। তার নিকটতম প্রার্থী সদ্য সাবেক চেয়ারম্যান আনারস প্রতিকের ওয়াহেদুজ্জামান বুলেট পেয়েছেন ৩ হাজার ৭৫৮ ভোট। এখানে নৌকার চেয়ারম্যান প্রার্থী মনোরঞ্জন রায় পেয়েছেন ৩ হাজার ৪৯৫ ভোট।


৬নং পাঙ্গা মটুকপুর ইউনিয়নে ৫ হাজার ১৫৪ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল হাকিম ভুট্টো (চশমা)। তার নিকটতম প্রার্থী নৌকা প্রতিকের মো. এমদাদুল ইসলাম পেয়েছেন ৪ হাজার ৩৩৩ ভোট। আরেক হেভিওয়েট প্রার্থী আনারস প্রতিকের আব্দুর রাজ্জাক পেয়েছেন ৩ হাজার ৭৭৫ ভোট।


সবচেয়ে আলোচিত ৭নং বোড়াগাড়ি ইউনিয়নে ১০ হাজার ২৬৩ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. আমিনুল ইসলাম রিমুন (আনারস)। আরেক প্রার্থী নৌকা প্রতিকের মোছা. জেবুন্নেছা আখতার জেবা পেয়েছেন ৭ হাজার ৮৬০ ভোট।


৮নং ডোমার সদর ইউনিয়নে ৪ হাজার ১৫৪ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়নপ্রাপ্ত মো. মাসুম আহম্মেদ (নৌকা)। তার নিকটতম প্রার্থী আনারস প্রতিকের হাফিজুল ইসলাম হাফিজ পেয়েছেন ৩ হাজার ৫৯৪ ভোট। এছাড়া জামায়াত সমর্থিত চশমা প্রতিকের খন্দকার আহমাদুল হক মানিক পেয়েছেন ২ হাজার ৯৪৬ ভোট।


৯নং সোনারায় ইউনিয়নে ৩ হাজার ৭৪০ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামী লীগের দলীয় প্রার্থী গোলাম ফিরোজ চৌধুরী (নৌকা)। তার নিকটতম প্রার্থী মোটরসাইকেল প্রতিকের ফজলুল করিম সরকার পেয়েছেন ২ হাজার ৮৮৯ ভোট। এছাড়া জাতীয় পার্টির লাঙ্গল প্রতিকের সার্জেন্ট (অব.) তৌহিদুল ইসলাম পেয়েছেন ২ হাজার ৭৬২ ভোট।


১০নং হরিণচড়া ইউনিয়নে ৪,২৪৭ ভোট পেয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়নপ্রাপ্ত মো. রাসেল রানা (নৌকা)। তার নিকটতম প্রার্থী সদ্য সাবেক চেয়ারম্যান আনারস প্রতিকের মো. আজিজুল ইসলাম পেয়েছেন ৪ হাজার ১২৫ ভোট।

রাজনীতি এর আরও খবর: